আপনি কেন করতে যাবেন অপশন ট্রেডিং ? আপনি কিসের উপর অপশন ট্রেডিং করতে পারেন ? Call Option কাকে বলে ? অপশন কিভাবে কিনবেন ? কতটা পরিমাণে কিনবেন ? Lot Size,Option Strike Price, Premium সবগুলো এই tutorial এ আমি আলোচনা করেছি ও যতটা সম্ভব সরল ভাষায় বুঝিয়েছি ।

Options trading tutorial in Bengali (Bangla)

আপনি যেকোনো trading instrument এর উপরে অপশন ট্রেডিং করতে পারেন ।

এখন প্রশ্ন হল যে trading instrument কাকে বলে ?

Trading instrument বলতে বোঝায় Nifty Index, Bank Nifty, Stock etc এবং এগুলোর উপর Option Trading করা সম্ভব।

Trading Instrument : 
যার উপর আপনি কোন Bet  করছেন বা বাজি ধরছেন বা ফাটকা করছেন তাকে বলা হয় Trading Instrument, এটা হতে পারে Stock/Nifty 50 index/ কমোডিটি |

এখানে দ্বিতীয় একটা প্রশ্ন আসে – সেটা হচ্ছে :

আপনি কেন করতে যাবেন অপশন ট্রেডিং ?

  • আপনিতো অনায়াসেই একটা Stock কিনে তার উপর ট্রেডিং করতে পারেন,
  • মানে কম দামে কিনলেন এবং বেশি দামে বেচে দিলেন,
  • তাহলে আপনি অপশন ট্রেডিং করতে যাবেন কেন ?
  • স্টক বলতে বোঝায় কোনো কোম্পানির শেয়ার |

এটা আমি নিচে উদাহরণ দিয়ে বুঝিয়েছি। Share Market Trading Explained in This Article

যদি আপনি Stock কিনতে চান সেক্ষেত্রে আপনাকে পুরো টাকাটাই দিতে হবে অর্থাৎ আপনার একটা বড় শেয়ার ক্যাপিটাল দরকার, এখানে একটি উদাহরণ দিয়ে আমি দেখাচ্ছি |

  • ধরা যাক আপনি Indusind Bank এর উপর একটা ট্রেড করতে চান
  • তাহলে আপনাকে Indusind Bank এর কিছু শেয়ার কিনতে হবে
  • যার এক একটি শেয়ারের দাম পড়বে 1400 টাকা |
  • এখানে ট্রেড করা বলতে আমি বুঝিয়েছি যে কিছু শেয়ার কিনে বেশি দামে বিক্রি করা , যেমন 1400 টাকায় কিনে, 1500 টাকায় বেচে দিলেন।
  • তাহলে প্রতি শেয়ার পিছু লাভ : 1500 – 1400 = 100 Rs
  • 100 শেয়ার কিনে থাকলে লাভ = 100 x 100 = 10,000 Rs
  • কিন্তু Indusind Bank এর 100 টি শেয়ারের দাম পড়বে 140000 টাকা | অতএব আপনি স্টক কিনতে গেলে আপনার একটা বড় ক্যাপিটাল দরকার বা অনেক পরিমাণ টাকা দরকার |
  • যদি আপনার টাকা থাকলে তো খুব ভালো , আপনি শেয়ার কিনে রেখে দিলেন ও এরপর যখন শেয়ারের দাম বাড়লো আপনি আপনার কেনা share বেচে profit বুক করলেন।

উল্টোদিকে যদি share এর দাম পড়ে যায় , তাহলে আপনি দুটো কাজ করতে পারেন | ধরুন আপনি Indusind bank এর 100 শেয়ার কিনেছিলেন প্রতিটা 1400 টাকা দরে, এখন দাম পড়ে গিয়ে হলো 1350 টাকা ।

  • 1)আপনি আপনার কেনা শেয়ার কম দামে বেচে দিয়ে লস বুক করতে পারেন , মানে আর্থিক ক্ষতি সহ্য করে বেরিয়ে আসতে পারেন,….. অথবা
  • 2) এই শেয়ারটা hold করতে পারেন । এই শেয়ারটা রেখে দিতে পারেন… ভবিষ্যতে দাম বাড়লে… তখন বেশি দামে বিক্রি করবেন, তবে যদি আর যদি দাম না বাড়ে, সেক্ষেত্রে বড়ো loss এর chance।

এবার আসি দ্বিতীয় প্রসঙ্গে যখন আপনার কাছে এত পরিমান টাকা নেই, অথচ আপনি বুঝতে পারছেন মার্কেট বাড়বে এবং আপনি ট্রেড করতে চাইছেন এবং কিছু লাভ করতে চাইছেন। Share Market Course Content (in Kolkata Training Centers)

এক্ষেত্রে লাভ করার আর একটা উপায় আছে – Options Trading

  • ধরুন আপনি বুঝতে পারছেন যে Indusind Bank এর share এর দাম, আগামী 10-12 দিনের মধ্যে অনেকটা বেড়ে যাবে ।
  • বর্তমান দাম চলছে 1400 টাকা প্রতি share এ,
  • এবং এটা আগামী 10-15 দিনের মধ্যে 1500 টাকায় পৌঁছাবে , সে ক্ষেত্রে আপনার পক্ষে অত্যন্ত উপযুক্ত হলো option trading।

এবার অপশন কিভাবে কিনবেন ? কতটা পরিমাণে কিনবেন ? কি কিনবেন?

Picture – 1 : Call Option Buy Live Screenshot

Option Trading Example on Nifty and Indusind bank stock - A profit and loss statement after buying one Indusind Bank stock option and 1 Lot Nifty Option
Option Trading Example on Nifty and Indusind bank stock – A profit and loss statement after buying one Indusind Bank stock option and 1 Lot Nifty Option

Option Trading দুভাবে করা যায় ,

  • যখন বুঝতে পারছেন শেয়ারের দাম বাড়বে তখন কিনতে হবে Call Option
  • আর যখন শেয়ারের দাম পড়তে চলেছে তখন  কিনতে হবে Put option।
  • আমি এখানে অপশন কেনার কথাই বলবো কারণ অপশন বিক্রি করা অত্যন্ত প্রফেশনাল দের কাজ । খুব ভালোভাবে Options Trading না জানলে করা সম্ভব না, তাই আপাতত অপশন কেনার মধ্যেই আমরা সীমাবদ্ধ থাকবো।

Option Lot Size :

Call Option কিনতে গেলে এক লট কিনতে হবে় , 1 lot = 300 শেয়ার  এবং এই লট সাইজ নির্ধারিত হয় ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জ NSE India দ্বারা | Call বা Put  অপশন কিনতে গেলে minimum 1 lot কিনতে হবে,  ইন্ডাসইন্ড ব্যাঙ্ক এর ক্ষেত্রে এটা 300 টা শেয়ার বোঝায় |

Call Options কেনা :

ধরুন এখন Indusind Bank এর শেয়ারের দাম চলছে 1400 টাকা , আপনি জানেন দাম বাড়বে ও 1500 যাবেই । আপনি 1500 টাকা Strike Price এর একটা কল অপশন কিনলেন যখন শেয়ারের দাম চলছে 1400 টাকা।

  • Call অপশন কিনতে গেলে আপনাকে প্রতি share পিছু দিতে হবে 1400 টাকার বদলে মাত্র 30 টাকা ।
  • কারণ এটি দিয়ে আপনি একটা কন্ট্রাক্ট কিনছেন, যেটা বোঝায় যে 1500 টাকা দাম গেলে আপনি 1 লট বা 300টা Indusind Bank শেয়ার এর অধিকারী হবেন এবং
  • সেটা 1500 টাকা তেই আপনি কিনতে পারবেন ।
  • যদি শেয়ারের দাম বেড়ে 1600 টাকাও হয় তাহলেও আপনি 1500 টাকা তেই 1 lot ইন্ডাসইন্ড ব্যাঙ্ক এর শেয়ার কিনতে পারবেন।
  • যদি আপনি যদি 300 শেয়ার টাকা দিয়ে কিনতেন তাহলে আপনার টাকা লাগতো 420000 টাকা ।
  • এক্ষেত্রে লাগলো 300 (lot size) x 30 = 9000 Rs

Call Option Premium :

  • এই যে প্রতি শেয়ার পিছু আপনি 30 টাকা দিলেন এটাকে বলে অপসন premium ,
  • এটা দিয়ে আপনি 1500 টাকাতে 1 Lot বা 300 টা Indusind ব্যাঙ্ক এর শেয়ার কেনার অধিকারী হলেন, এই শর্তে -যদি দামটা 1500 বা তার উপরে যায় নচেৎ নয় ।
  • যদি 1600 টাকাতেও আমি চলে যায় , আপনি অনেক কম দামে মানে 1500 টাকাতে সেই share কিনতে পারবেন,
  • মানে কিনেই বেচে দিলে হাতে গরম 100 টাকা প্রতি শেয়ার পিছু । মানে 300 শেয়ার এ 30,000 টাকা।

** আপনারা অবশ্যই যে ছবিটি দেওয়া আছে তার সাথে মিলিয়ে দেখুন, Picture – 1 : Call Option Buy Live Screenshot

কেন Call Option কিনলেন?

কারণ আপনি জানেন যে দামটা বাড়বে|

Strike Price in Option Trading ?

যখন Indusind Bank এর শেয়ারের দাম চলছিল 1400 টাকা, আপনি জানেন দাম বাড়বে ও 1500 যাবেই ।

  • আপনি 1400 টাকাতে যখন দাম দাঁড়িয়ে, তখন ভবিষ্যতের দিকে তাকিয়ে আপনি 1500 টাকা দাম এ Indusind Bank এর শেয়ার কেনার একটা কন্ট্রাক্ট করেছিলেন
  • শেয়ার পিছু 30 টাকা প্রিমিয়াম দিয়ে ও একটা Call Option কিনে ।
  • এবার যত 1500 টাকার দিকে শেয়ারের দাম যাবে আপনার প্রিমিয়াম এর দাম ও তত বাড়বে ।
  • 1500 টাকা strike price এ Call option প্রিমিয়াম এর দাম ছিল 30 টাকা ,যখন শেয়ার এর দাম চলছিল 1400 টাকা।

ধরুন Call Option কেনার দিন : 01/07/2019

  • জুলাই-১ => শেয়ারের দাম 1400 => প্রিমিয়াম 30 টাকা
  • জুলাই-৩ => শেয়ারের দাম চলছিল 1450 => প্রিমিয়াম 45 টাকা
  • জুলাই-৬ => শেয়ারের দাম চলছিল 1502 => প্রিমিয়াম 70 টাকা
  • জুলাই-৮ => শেয়ারের দাম চলছিল 1580 => প্রিমিয়াম 100 টাকা

আপনি কেনা Call Option বেচে দিলেন জুলাই-৮ তারিখে 100 টাকা দরে|
লাভ : ( 100-30 ) = 70 টাকা X Lot Size (300) = 21000 Rs

তাহলে আপনি 9000 টাকা ইনভেস্ট করে লাভ করলেন 21000 টাকা, এটা অপসন ট্রেডিং এই সম্ভব।

Call Option কিনতে গিয়ে কি Loss হতে পারে ? সর্বোচ্চ কতটা আর্থিক ক্ষতি হতে পারে ?

Call Optionএ কি লোকসান হতে পারে না ? মনে রাখবেন যে টাকা আপনি দিচ্ছেন তার পুরোটাই যেতে পারে । তবে তার বেশি কখনোই যাবে না, যে ছবিটি দেওয়া আছে তার সাথে মিলিয়ে দেখুন। Nifty ইনডেক্স অপসন যেটা কেনা হয়েছিল তার প্রায় পুরোটাই চলে গেলো। লাভ যেমন দ্বিগুন বা চার গুণ হতে পারে, তেমনি প্রিমিয়াম এর পুরো টাকাটাই আপনি হারাতে পারেন ।

Other free tutorials on option trading

Published by Share Market Training Kolkata

People like to trade in share market for quick money. Mr Bikram Choudhurys Share Market Courses are designed for stock market new comers to do right trade, disciplined trading not to focus on how much profit they are making initially, rather how to avoid big losses and avoid losses. Most beginners in share trading start with losses mostly caused by indiscipline trading driven by trap of greed. He teaches how to trade to minimize losses and maximize profit.